Home | ইসলাম | কুড়িগ্রামে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করলেন পঞ্চাশোর্ধ মহিলা

কুড়িগ্রামে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করলেন পঞ্চাশোর্ধ মহিলা

জীবনের প্রায় অর্ধশত বছর পেরিয়ে কলেমা পড়ে হিন্দু ধর্ম থেকে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করলেন এনু বালা সেন (৫০) নামে এক মহিলা। ইসলাম ধর্ম গ্রহণের পর তার নাম ফাতেমাতুজ জোহরা রাখা হয়েছে। মঙ্গলবার রাতে কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলার শিমুলবাড়ীর জকুরটলে একটি তাফসিরুল কোরআন মাহফিলে এসে তাফসিরকারকের কাছে কলেমা পড়ে স্ব জ্ঞানে হিন্দু ধর্ম ত্যাগ করে মুসলমান ধর্ম গ্রহণ করেন তিনি।

তাকে কলেমা পড়ান তাফসিরুল কোরআন মাহফিলের প্রধান বক্তা রংপুরের কেরামতিয়া কামিল মাদ্রাসার মুফাসসির মাওলানা শাইখুল ইসলাম শাইখ।
কলেমা পড়ে মুসলমান হওয়ার সাথে সাথে তাফসিরুল কোরআন মাহফিলে আসা ধর্মপ্রাণ মানুষরা নবমুসলিম নারীর সাহায্যার্থে নগদ অর্থ প্রদান করেন। এতে প্রায় ১৭ হাজার টাকা অনুদান সংগ্রহ হয়েছে বলে জানা গেছে।

তাফসিরুল কোরআন মাহফিলের আয়োজক শিমুরবাড়ী জকুরটল গ্রামের মমিনুল ইসলাম (৫২) ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে পরিবর্তন ডটকমকে জানান, তাফসিরুল কোরআন মাহফিল চলাকালীন সময়ে ওই মহিলা মঞ্চে এসে স্ব জ্ঞানে হিন্দুধর্ম ত্যাগ করে মুসলমান ধর্ম গ্রহণের ইচ্ছা পোষণ করলে তাকে কলেমা পড়িয়ে ইসলাম ধর্ম গ্রহণে সহযোগিতা করা হয়।

এ সময় তার সাহায্যে অনুদান হিসেবে আসা ১৬ হাজার টাকা তিনি হেফাজতে রেখেছেন। নবমুসলিম নারীর কোথাও থাকার ঠাঁই না হলে তাকে তিনি নিজের জিম্মায় রাখবেন বলেও জানান মমিনুল ইসলাম।
পার্শ্ববর্তী ফুলবাড়ী সদর ইউনিয়নের পশ্চিম কবিরমামুদ গ্রামের বানিয়াটারী গ্রামের রমজান আলী (৫৮) রহমত আলী (৬৫) জানান, দীর্ঘদিন ধরে তারা ওই নারীকে মুসলমানদের বাড়িতে চলাফেরা, খাওয়া-দাওয়া করতে দেখেন। তাদের বাড়িতেও মাঝেমধ্যে ওই নারী থাকতেন। তিনি তাদের কাছে প্রায়ই ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করার ইচ্ছার কথা জানাতেন। এখন সত্যিই ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন এমনটি শুনে তারা তার মঙ্গল কামনা করেন।

নব মুসলিম নারী ফাতেমাতুজ জোহরা (৫০) পরিবর্তন ডটকমকে বলেন, আমার বাবা-মা কেউ নেই। আমি ইসলাম ধর্মকে গ্রহণ করে এখন থেকে নামাজ-কালাম পড়বো, রোযা রাখবো। আমাকে সবাই দোয়া করবেন। আমি মুসলমান হয়েই মরতে চাই। এসময় তিনি তার জীবনের বাকি সময়টি ভালোভাবে কাটাতে সবার সহযোগিতা কামনা করেন।

Comments

comments

About admin

Check Also

আসহাবে কাহাফ: ঘুমন্ত সেই গুহাবাসী যুবকদের বিস্ময়কর কাহিনী

জনাকয়েক পলাতক যুবক, একটি গুহা আর তিন শতাব্দীর নিদ্রা- আসহাবে কাহাফের কাহিনী কেবল মুসলিমদের কাছেই প্রবল জনপ্রিয় একটি ঘটনা নয়, বরং খ্রিস্টানদের কাছেও ছিল খুব জনপ্রিয় ও অলৌকিক ঘটনা। কুরআনে বর্ণিত এই কাহিনীর সাথে সাথে সেই সিরিয়ান উপাখ্যান এবং যে নগরীতে এই ঘটনা ঘটেছিল- সবই আমরা এ লেখায় আলোচনা করার চেষ্টা করব। শুরুতেই বলে রাখা দরকার, এই ঘটনাটি কুরআনে বর্ণিত বিধায়, মুসলিমদের বিশ্বাস

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *